স্যামসাংয়ের বিরুদ্ধে মাইক্রোসফটের মামলা

স্যামসাংয়ের বিরুদ্ধে মাইক্রোসফটের মামলাপ্যাটেন্ট ব্যবহার সংক্রান্ত পাওনা পরিশোধ না করায় স্যামসাংয়ের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগ দায়ের করেছে মাইক্রোসফট। মাইক্রোসফট নোকিয়া অধিগ্রহণের পর থেকেই টাকা পরিশোধে অস্বীকৃতি জানিয়ে আসছিল স্যামসাং।

ম্যানহাটনের একটি আদালতে টাকা উদ্ধারের আবেদন করা হয়। তবে টাকার অংক কত, সেই ব্যাপারে জনসাধারণের জন্য কোন তথ্য উন্মুক্ত করা হয়নি। গত শুক্রবার এক ব্লগে মাইক্রোসফটের এক কর্মকর্তা জানান, “দুটি প্রতিষ্ঠানের মধ্যকার এই সম্পর্ককে মাইক্রোসফট গুরুত্ব দেয় এবং সম্মান করে। তবে দুঃখের ব্যাপার হলো, মাঝেমধ্যে অংশীদাররাই বিভিন্ন ব্যাপারে দ্বিমত পোষণ করে।”

গুগলের অ্যান্ড্রয়েড অপারেটিং সিস্টেম চালিত স্মার্টফোনের সাথে প্রতিযোগিতা করে বাজারে টিকে থাকতে চাইছে মাইক্রোসফট। আর এ লক্ষ্যে স্যামসাং এবং এইচটিসির সাথে মাইক্রোসফটের প্যাটেন্ট সংক্রান্ত এক চুক্তি হয় যার আওতায় এই দুটি প্রতিষ্ঠানের উতপাদিত প্রতিটি অ্যান্ড্রয়েড চালিত স্মার্টফোনের জন্য একটি নির্দিষ্ট পরিমান অর্থ পায় মাইক্রোসফট। তবে এই মটোরোলা এই চুক্তির বিরুদ্ধে ২০১০ সাল থেকেই আদালতে লড়ছে।

এই চুক্তির শর্ত মোতাবেক স্যামসাং অর্থ পরিশোধ করে আসছিল। তবে গত বছর মাইক্রোসফট নোকিয়া অধিগ্রহণের পর চুক্তির শর্ত ভঙ্গ হয়েছে, এমন কারন দেখিয়ে অর্থ পরিশোধ বন্ধ করে দেয় স্যামসাং। আর এরই পরিপ্রেক্ষিতে আদালতের দ্বারস্থ হলো মাইক্রোসফট।

সোর্সঃ ইন্টারনেট

No Responses

Write a response