যে পাঁচ মেইলে ক্লিক করলে সর্বনাশ

email-hackingচটকদার বিষয়বস্তু রয়েছে এমন কিছু কিছু মেইল পড়ার জন্য ক্লিক করলে তা সর্বনাশের কারণ হতে পারে বলেই সতর্ক করেছেন মার্কিন প্রযুক্তি-গবেষকেরা। তাঁদের মতে, ইমেইলের বিষয়বস্তু অনেক সময় বড় ধরনের স্ক্যাম বা ফিশিং প্রচারণায় বড় ভূমিকা পালন করে। সাইবার দুর্বৃত্তরা মেইল ব্যবহারকারীদের বোকা বানানোর জন্য মেইলের বিষয়বস্তু নিয়ে নানারকম চাতুরী করে। এ ধরনের মেইলে ক্ষতিকর লিংক বা ভাইরাসযুক্ত ফাইল ডাউনলোডের লিংকও জুড়ে দিতে পারে দুর্বৃত্তরা।

লিংকডইনের আমন্ত্রণ
ইমেইলের বিষয়বস্তু হিসেবে অনেক ক্ষেত্রে মেইলের ইনবক্সে এসে জমতে দেখা যায় লিংকডইনের আমন্ত্রণ। ওয়েবসেন্স রিসার্চ নামে একটি প্রযুক্তি গবেষণা প্রতিষ্ঠানের গবেষকেদের মতে, ইমেইলের বিষয়বস্তু দেখেই অধিকাংশ সময় প্রতারণামূলক মেইল সম্পর্কে ধারণা করা সম্ভব। ইমেইলে আসা লিংকডইনের আমন্ত্রণপত্র অধিকাংশ ক্ষেত্রে সঠিক হতে পারে তবে কিছু কিছু মেইল আপনাকে ম্যালওয়্যারপূর্ণ ওয়েবসাইটে নিয়ে যেতে পারে। এক্ষেত্রে পরিচিত কারও লিংকডইন আমন্ত্রণ না হলে সরাসরি স্প্যাম হিসেবে নির্বাচিত করে দিতে পারেন। সরাসরি লিংকডইন প্রোফাইলে গিয়ে প্রোফাইল পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে আমন্ত্রণ গ্রহণের সিদ্ধান্ত নেওয়া উচিত।

যে মেইল পৌঁছায় না
যেসব মেইল পাঠানোর পর নির্দিষ্ট মেইল ঠিকানায় পৌঁছায় না ‘মেইল ডেলিভারি ফেইল’ হিসেবে ফেরত আসে সে মেইলগুলো বিপদজনক হতে পারে। অনেক সময় সাইবার দুর্বৃত্তরা ‘মেইল ডেলিভারি ফেইল’ বিষয়বস্তু নির্বাচন করে ম্যালওয়্যারের লিংক পাঠায়। অনেক ক্ষেত্রে ব্যবহারকারী আগ্রহ নিয়ে কোন মেইল ফেরত এসেছে তা দেখতে ক্লিক করেন। মেইলে এ ধরনের বিষয়বস্তু থাকলে তা ক্লিক করার আগে অবশ্যই বিবেচনা করতে হবে।

গ্রাহক সেবার মেইল
অনেক সময় মেইলের বিষয়বস্তু হিসেবে লেখা হয় ‘ডিয়ার কাস্টমার’ বা প্রিয় গ্রাহক। এই বিষয়বস্তুটি বর্তমানে সাইবার দুর্বৃত্তরা বেশি ব্যবহার করছে। চাতুরী করে এ বিভিন্ন বিষয়ে লোভ দেখিয়ে এ ধরনের মেইল ব্যবহারকারীদের পাঠানো হয়। এসব মেইলে বিভিন্ন ম্যালওয়্যার সরবরাহকারী সাইটের লিংক থাকে। এসব লিংকে ক্লিক করা হলে এমন একটি সাইটে ব্যবহারকারী চলে যেতে পারেন যা অবিকল আসল কোনো সাইটের মতো। কিন্তু এসব সাইটগুলো আসলে প্রতারণা করে তথ্য ও অর্থ হাতিয়ে নিতে পারে।

গুরুত্বপূর্ণ যোগাযোগের মেইল
অনেক সময় মেইলের বিষয়বস্তু হিসেবে লেখা থাকে ‘কমিউনিকেশন ইম্পোর্ট্যান্ট’ বা গুরুত্বপূর্ণ যোগাযোগ। এ ধরনের বিষয়বস্তু সংক্রান্ত মেইলগুলো বিপদজনক। এ লিংকে ক্লিক করলে ব্যবহারকারী ভাইরাসপূর্ণ ওয়েবসাইটে চলে যেতে পারেন। এসব ওয়েবসাইট থেকে কিছু ডাউনলোড করলে কম্পিউটারের ক্ষতি হতে পারে। কমিউনিকেশন ইম্পোর্ট্যান্ট বিষয়বস্তুর মেইল দেখলে তা ক্লিক না করার পরামর্শ দিয়েছেন গবেষকেরা।বিষয়বস্তু দেখে মেইল সম্পর্কে ধারণা পেতে পারেন

লটারি জেতার মেইল
বিশাল অঙ্কের লটারি জিতেছেন জানিয়ে বিভিন্ন অ্যাকাউন্ট থেকে যদি আপনার ইনবক্সে মেইল আসে, আশান্বিত না হয়ে সতর্ক হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তাঁদের মতে, নিরাপত্তার জন্য এ মেইলগুলো এড়িয়ে চলাই শ্রেয়। যদিও এসব অজানা প্ররোচনামূলক মেইলের অধিকাংশই ফিল্টার হয়ে চলে যায় স্প্যামবক্সে, তবু সিস্টেমকে ধোঁকা দিয়ে কিছু মেইল আপনার ইনবক্সে চলে আসতে পারে। অনলাইনে লটারি জিতেছেন বলে আপনার কাছে পাঠানো এসব অজানা মেইলে বিশ্বাস না করার পরামর্শই দিয়েছেন নিরাপত্তা বিশ্লেষকেরা। কম্পিউটার নিরাপত্তা বিশ্লেষকদের মতে, অনলাইনে লটারি জেতার মেইল হতে পারে ডিজিটাল প্রতারণার পাতা ফাঁদ।

কী করবেন?
বড় কোম্পানিতে মোটা বেতনে চাকরির সুযোগ, পুলিশের বড় কর্মকর্তার ব্যক্তিগত যোগাযোগের বার্তা, উকিল নোটিশ, ঘনিষ্ঠ বন্ধুর বিশেষ অফার, সম্পত্তির ভাগ, দরিদ্রকে সাহায্য, অনলাইনে ঘণ্টায় প্রচুর আয় এরকম নানা ছুতোয় আপনার ইনবক্সে জমা হওয়া ই-মেইল সর্বনাশের কারণ হতে পারে। কম্পিউটার নিরাপত্তা প্রতিষ্ঠান সিমানটেকের গবেষকেরা সতর্ক করে জানিয়েছেন, সাইবার-অপরাধীরা ব্যক্তিগত তথ্য চুরি করতে এখন নানা সুবিধার কথা জানিয়ে, নানা কৌশলে ই-মেইল করছে। এশিয়া অঞ্চলে ই-মেইল স্ক্যাম বাড়ছে বলেই গবেষকেরা জানিয়েছেন।

১. আপনার ইনবক্সে ক্ষতিকারক এ ধরনের মেইল এলে তা নির্বাচন করে স্প্যাম বলে চিহ্নিত করুন।
২. অনলাইনে অপ্রয়োজনে মেইল অ্যাকাউন্ট দেওয়া থেকে বিরত থাকুন, আপনার সামাজিক যোগাযোগে সতর্ক হন।
৩. ই-মেইল পড়ে অর্থ উপার্জন, ই-মেইল ব্যবহার করে অনলাইন জরিপ, ক্লিক করে আয়, বিজ্ঞাপন দেখে আয়, এ বিষয়গুলোর মেইলে সতর্ক থাকুন।

No Responses

Write a response