যুক্তরাষ্ট্রের পরীক্ষাগারে প্রাণঘাতী রোগের জীবাণু

জুলাইয়ে দেশটির রাজধানী ওয়াশিংটনে জাতীয় স্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের (এনআইএইচ) পরীক্ষাগারের সংরক্ষিত বোতলে হঠাৎ করে গুটি বসন্তের জীবাণু আবিষ্কৃত হয়। এ আবিষ্কারের সূত্র ধরে এ বিষয়ে একটি অনুসন্ধান শুরু হলে অন্যান্য পরীক্ষারগুলোর সংরক্ষিত বোতলে মারাত্মক বিষাক্ত এসব জীবাণু খুঁজে পাওয়া যায়।

খুঁজে পাওয়া জীবাণুগুলোর মধ্যে ভয়াবহ প্রাণঘাতী বিষক্রিয়া সৃষ্টিকারী ব্যাকটেরিয়া, প্লেগের জীবাণু ও বিরল ধরনের ক্রান্তীয় সংক্রমণ সৃষ্টিকারী জীবাণু রয়েছে বলে শনিবার জানিয়েছে বিবিসি।

এসব জীবাণু, যেগুলোর কোনো কোনোটি প্রায় এক শতাব্দী আগে সংরক্ষণ করা হয়েছিল।

এনআইএইচ’র কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, তাদের কিছু পরীক্ষাগারে বিষাক্ত পদার্থ ব্যবহার করা হয় এবং সেগুলোর নিয়মিত তদারকিও হয়।

কিন্তু সম্প্রতি যেসব বিষাক্ত উপাদান ও জীবাণু পাওয়া গেছে সেগুলো ঐতিহাসিক সংগ্রহের অংশ এবং নিয়মিত তদারকি ছাড়া এসব মারাত্মক প্রাণঘাতী উপাদান সংরক্ষণ করে রাখার অনুমতি নেই বলে জানিয়েছেন তিনি।

একটি বাক্সের মধ্যে অন্যান্য অণুজীবসহ ৮৫ থেকে ১০০ বছরের পুরনো এক বোতল রিসিন পাওয়া গেছে। এটি ভয়াবহ বিষাক্ত একটি জীবাণু।

লিখিত এক বিবৃতিতে এনআইএইচ বলছে, “এই বিষয়টিকে এনআইএইচ খুব গুরুত্বের সঙ্গে গ্রহণ করেছে। এইসব উপাদানগুলো খুঁজে পাওয়ায় প্রাণের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য পরীক্ষাগারগুলোর উপাদান নিয়মিত তদারকির বিষয়টি সম্পর্কে সজাগ থাকার প্রয়োজনীয়তার বিষয়টি উঠে এসেছে।”

কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, বিষাক্ত এসব উপাদানগুলো সংরক্ষণে যথাযথ নিয়ম অনুসরণ করা না হলেও এগুলো সিল করা আধারে ছিল এবং এতে পরীক্ষাগারগুলোর কোনো কর্মীর সংক্রমিত হওয়ার ঝুঁকি নেই।

সোর্সঃ ইন্টারনেট

No Responses

Write a response