বাংলাদেশের সামনে ‘মাসাকাদজা দেয়াল’

1c8cd04b033f7ea9e7ce7a4e1bb63ed5-Masakadzaহ্যামিল্টন মাসাকাদজা একটা বড়সড় ধন্যবাদ দিতেই পারেন শামসুর রহমানকে। স্লিপে দাঁড়িয়ে তাঁর ছেড়ে দেওয়া একটি সহজ সুযোগের কারণেই তো মাসাকাদজার এই ইনিংস। দিনের নবম বলে তাইজুলের বলে মাসাকাদজার ব্যাট ছুঁয়ে প্রথম স্লিপে আসা ওই সহজ ক্যাচটি যদি শামসুর রহমান ধরতে পারতেন, তাহলে গোটা দিনের হিসাবটাই অন্যভাবে লেখা হতো। ম্যাচ রিপোর্টটি হয়তো হতো বাংলাদেশের বোলারদের বীরত্বগাথা বর্ণনা করে। কিন্তু তা হয়নি। উল্টো লিখতে হচ্ছে ওই মাসাকাতজা–গাথাই। তাঁর অনবদ্য, অপরাজিত ১৫৭ রানের সুবাদে খুলনা টেস্টের তৃতীয় দিনটা যে নিজেদেরই করে নিয়েছে জিম্বাবুয়ে। স্কোরবোর্ডে ৩৩১ রান তুলে ৫ উইকেট রেখে বাংলাদেশের সংগ্রহের চেয়ে তারা এখন পিছিয়ে মাত্র ১০২ রানে।
মাসাকাদজাকে দারুণ সঙ্গ দিচ্ছেন রেগিস চাকাভা। ১৪৯ বল খেলে ৭৫ রানে অপরাজিত তিনি। এই দুই ব্যাটসম্যানের মধ্যে গড়ে ওঠা অবিচ্ছিন্ন ১৪২ রানের জুটি এই মুহূর্তে বাংলাদেশের বিপক্ষে ষষ্ঠ উইকেটে সর্বোচ্চ।
নির্দিষ্ট করে বললে শামসুর রহমান স্লিপে দাঁড়িয়ে মাসাকাদজার তিনটি ক্যাচ ছেড়েছেন। প্রথমটি রুবেলের, দ্বিতীয়টি তাইজুল ও তৃতীয়টি সাকিব আল হাসানের ওভারে। প্রথম দুটিকে ‘কঠিন ক্যাচ’ বলে না হয় ব্যর্থতার খাতা থেকে বাদ দেওয়া গেল, কিন্তু অপরটিকে তিনি কী বলবেন? তাইজুলের বলের ওই ক্যাচটি এতটাই সহজ ছিল যে অনেক ক্রিকেটারই স্লিপে দাঁড়িয়ে ওই ক্যাচ ইচ্ছা করলেও ফেলতে পারবেন না। শামসুর যখন সেই সুযোগ হেলায় হারালেন মাসাকাদজার সংগ্রহ তখন ২৫। এরপর আরও ১৩২ রান করেছেন এই জিম্বাবুইয়ান ব্যাটসম্যান।
সকালে ফিল্ডিংয়ের ‘ওলট-পালট’ প্রায় পূরণ করেই দিয়েছিলেন সাকিব আল হাসান। ১৭ ওভার পর বল করতে এসে তিনি পুরোপুরি পাল্টে দিয়েছিলেন দৃশ্যপট। উইকেট থেকে খুব একটা সুবিধা পাবেন না—এই বিষয়টি ধরে নিয়েই তিনি লেগ ও মিডল স্টাম্প লাইনে বল ফেলতে লাগলেন। হাতে হাতেই এল ফল। তাঁর ঘূর্ণিতেই মাত্র ৩০ রানের ব্যবধানে ফিরে গেলেন ব্রেন্ডন টেলর, এলটন চিগুম্বুরা ও ক্রেইগ আরভিন। টেলর, চিগুম্বুরা দুজনেই ফেরেন লে সাইডে মুমিনুল হকের ক্যাচে পরিণত হয়ে। চিগুম্বুরার ক্যাচটি উইকেটের পেছনে ধরেন মুশফিকুর রহিম। এই মুশফিকই চাকাভার বিপরীতে একটি নিশ্চিত স্টাম্পিংয়ের সুযোগ হাতছাড়া করেন, সেই চাকাভাই তো দিনশেষে পীড়া হয়ে টিকে আছেন। চাকাভার বিপক্ষে আম্পায়ার আলীম দারের একটি এলবির সিদ্ধান্তও অবশ্য রিভিউয়ে প্রত্যাখ্যাত হয়েছে।

আজ সারা দিনে ৯৩ ওভার ব্যাট করে স্কোরবোর্ডে দিনশেষে ২৭৮ রান তোলা জিম্বাবুয়ে কাল ভালো কিছুর আশা করতেই পারে!

সোর্সঃ ইন্টারনেট

No Responses

Write a response