নারীর চোখে সত্যিকারের পুরুষ হয়ে ওঠার ৫টি টিপস

swadesjhনারী-পুরুষের মাঝে সম্পর্কটা যতটা জটিল, আবার ততটাই রহস্যময়। সবচাইতে বড় কথা এই যে সময়ের সাথে সাথে বদলে যায় এই সম্পর্ক। একটা সময় ছিল, যখন উচ্চ বংশ আর অর্থ বিত্ত থাকলেই একজন পুরুষকে “সত্যিকারের পুরুষ” হিসাবে বিবেচনা করা হতো। কিন্তু যুগের সাথে সাথে ব্যাপারটা বদলে গেছে। আজকের আধুনিক নারীর চোখে সত্যিকারের পুরুষ হয়ে ওঠার ব্যাপারটা আরও একটু কঠিন। আজ জেনে নিন কোন ব্যাপারগুলো আপনাকে যে কোন নারীর চোখেই সম্মানের আসনে আসীন করবে।

১) একজন সত্যিকারের পুরুষ জানবেন সম্মান দিতে

সম্মান মানে কেবল নারীদেরকে সম্মান দেয়ার বিষয়ে বলা হচ্ছে না। বরং একজন সত্যিকারের ব্যক্তিত্ব সম্পন্ন পুরুষ আশেপাশের সকলকেই সম্মান দিতে পারবেন। ছোট-বড়, ধনী-গরীব সকলের সাথেই তার ব্যবহার হবে সুন্দর ও অমায়িক। অন্যকে সম্মান দেয়ার মাধ্যমেই তাঁরা সম্মান আদায় করে নেন সমাজের বুকে। কাউকে সম্মান দেয়া এবং চাটুকারিতা এক জিনিস নয়। একজন সত্যিকারের পুরুষ জানেন সেই পার্থক্য।

২) যত যাই হোক, তিনি মাথা উঁচু করে বাঁচেন

জীবনের প্রয়োজনে কমবেশি সমঝোতা সকলকেই করতে হয়। কিন্তু একজন সত্যিকারের পুরুষ কখনোই এমন কোন সমঝোতা করেন না নিজের স্বার্থে, যাতে কিনা তার সম্মানহানি হয়। একইভাবে, পর নির্ভরশীল হয়ে থাকা বা অন্যের উপার্জনে জীবনধারণ করা ইত্যাদি কাজ তাঁরা কখনোই করেন না। তাঁরা নিজের আত্মমর্যাদা অক্ষুণ্ণ রেখে সমাজের বুকে মাথা উঁচু করে বাঁচেন আর সেটাই নারীকে আকর্ষণ করে সবচাইতে বেশি।

৩) তাঁরা হন কঠোর পরিশ্রমী ও নিজের লক্ষ্যে স্থির

সবচাইতে বড় সত্য এটাই যে নারীরা কঠোর পরিশ্রমী ও ক্যারিয়ার সচেতন পুরুষকেই সত্যিকারের পুরুষ মনে করে থাকেন। কারণ তাঁরা জানেন যে এমন পুরুষেরা জীবনে অনেক উন্নতি করেন এবং সেটাই নারীর কাম্য।

৪) তাঁরা নোংরামিকে প্রশ্রয় দেন না

আজকালকার যুগে নানান রকমের অসামাজিক কার্যকলাপ যেন তরুণ সমাজের জীবনের অংশ হয়ে দাঁড়িয়েছে। পর্ণ ছবি দেখা হতে শুরু করে নেশা করা, অতিরিক্ত বন্ধুপ্রীতি কিংবা আরও নানান ধরণের কার্যকলাপে জড়িয়ে যাচ্ছেন অনেকেই। অনেক তরুণই মনে করছেন যে এইসব করে নারীদের চোখে তাঁরা আরও বেশি আকর্ষণীয় হয়ে উঠবেন। কিন্তু সত্য এটাই যে এসব দোষ যাদের আছে, নারীরা কখনোই তাঁদেরকে সত্যিকারের পুরুষ মনে করেন না। একজন পুরুষের মাঝে জীবনের সাধারণ বিষয় হতে শুরু করে যৌনতা পর্যন্ত সকল ক্ষেত্রেই রুচিশীলতা আশা করেন নারী।

৫) বাইরেও হতে হবে পরিপাটি

হ্যাঁ, একটা সময় ছিল এমন যে পুরুষের চেহারা বা বাইরের সৌন্দর্যকে কেউ পাত্তা দিতেন না খুব একটা। কিন্তু সময় বদলেছে। এখন পুরুষের বেশভূষাও সমান জরুরী তার ব্যক্তিত্বের মত। এবং নারীর চোখে সত্যিকারের পুরুষ তাঁরাই যারা নিজের বয়সের সাথে সামঞ্জস্য রেখে সঠিক পোশাক পরিধান করেন ও নিজেকে পরিপাটি রাখেন।

সোর্সঃ ইন্টারনেট

No Responses

Write a response