গুগল এডসেন্স পাবলিশার্স মিটআপ আগস্ট ২০১৫ – জেনে নিন নতুন সব নিয়ম কানুন এসইও এবং এডসেন্স সম্পর্কে!!

চলে আসলাম আপনাদের মাঝে ডজন খানিক প্রযুক্তি টিপস নিয়ে। আমাদের দেশ প্রযুক্তির অনেক সেবা থেকেই বঞ্জিত। বিশেষ করে গুগল, মাইক্রোসফট বা অ্যাপেল এই ধরনের নামকরা প্রযুক্তি বিশারদদের মুখ থেকে সরাসরি কথা বলা বা জানার সুযোগ হয় না।

কিন্তু প্রযুক্তি নিত্য- নতুন বদলাতে আছে। যেমন ধরুন এসইও বা এডসেন্স বা এফিলিয়েট এসব বিষয় প্রতিনিয়ত চেঞ্জ করছে তাদের নিয়ম-কানুন। কিন্তু আমরা এসব নিয়ে কাজ করলেও এসব নতুন আপডেট অনেক সময় আমাদের চোখের অগোচরে থেকে যায়। যেটা আমাদের পার্সোনাল ব্লগিং বা ফ্রিল্যান্সিং ক্লায়েন্ট সামলানো বেশ কঠিন হয়ে যায়। যেকারনে আমাদের আপডেট হওয়ার প্রয়োজন পড়ে। কিন্তু পর্যাপ্ত সুযোগের অভাব আমাদের সেটা বিলম্বিত করে মাঝে মাঝে।

হলে ব্লগিং বা এসইও বা সমরুপ সেক্টরে আমরা পিছিয়ে থাকবো কেন। না, আর সেটা হতে দেওয়া যাবে না। তাইতো চলে আসলাম গুগলের সর্বশেষ আপডেট মুলক আমার বাস্তব অভিজ্ঞতা (যদিও আমি বিভিন্ন ইংরেজি ফোরাম বা ব্লগ থেকে সংগ্রহ করি) নিয়ে আসলাম। আসুন তাহলে জানতে শুরু করি।

গুগল ইন্ডিয়া মিট-আপে অংশ গ্রহন:
আজ আমি গুগল ইন্ডিয়া মিট-আপে অংশ গ্রহন করার (লেখক) বেশ ভালো একটি সুযোগ পেলাম। গুগলের অফিসিয়াল এবং আরও অনেক বাস্তব অভিজ্ঞতা সম্পন্ন বিশেষজ্ঞদের কাছ থেকে অনেক কিছু শেখার সুযোগ করে দিলো এই মিট-আপ।

কিন্তু আপনারা পিছিয়ে থাকবেন কেন গুগলের সকল আপডেট জানা থেকে। তাইতো আপনাদের জন্য বুলেট পয়েন্ট গুলো শেয়ার করলাম। আপনাদের আরও বেশি কাজে লাগবে ব্লগিং সেক্টরকে এগিয়ে নিতে আশা করি।

সেমিনার শুরু হয়েছিল কল্লোল বোসের (গুগল এড পার্টনার ইন্ডিয়া) ইন্টারনেটের বিভিন্ন বিষয়ের আলোচনা দিয়ে। তিনি খুব সুন্দরভাবে মোবাইল সাইটে গুগলের এড পারফর্ম এবং ব্যবহারকারীদের পছন্দ তুলে ধরেন।

পরবর্তীতে Harguneet Singh মাতৃভাষায় (এখানে মুলত হিন্দিকে বুঝানো হয়েছে) গুগলের প্রাধান্য নিয়ে আলোচনা করেন। যেটা মাতৃভাষায় ব্লগিং আসলেই উৎসাহিত করার মতো।

তারপর গুরুত্বপূর্ণ সব গুগল র‍্যাঙ্কিং এবং মানি জেনারেট পদ্ধতি তুলে ধরেন মিঃ রাফি। তিনি আলোচনা করেন এডসেন্স একাউন্ট গুগল এনালিটিক্সের সাথে যুক্ত করলে যে বিশেষ সুবিধা পাওয়া যায়। যেমন, র‍্যাঙ্কিং, রিসার্চ বা মানি জেনারেট। যেটা এডসেন্স থেকে ইনকাম করতে পাবলিশারদের একটু বেশিই সাহায্য করে। কোন আর্টিকেল বা লেখা আপনাকে বেশি মানি জেনারেট করছে সেটাও এখানে উঠে আসে।

তবে সব থেকে মজার সেশ্যন ছিল মিঃ উদয়ের, জিনি গুগলে স্প্যাম্প এবং ইনভ্যালিড এক্টিভিটিস দেখাশুনা করেন। তার টিম গুগলে ব্যাড গাইস (BAD GUYS) নামেও পরিচিত তাদের এই সব দায়িত্বের জন্য। উদয় খুব সুন্দরভাবে উপস্থাপন করেন কেন গুগল এডসেন্স একাউন্ট ব্যান করেন তা নিয়ে।

মিঃ উদয়ের এডসেন্স ব্যান গাইডলাইন ক্রমানুসারে তুলে ধরা হলো,

২০০৩ – ২০১২ গুগল কোন ওয়ার্নিং ছাড়ায় সামান্য কোন ভুল বা ইনভ্যালিড ক্লিক পড়লেই সে একাউন্ট ব্যান করে দিতো। কিন্তু এখন সেটা অনেক চেঞ্জ নিয়ে আসছে গুগল। যেমন,

১) ওয়ার্নিং – এখন গুগল আপনার সাইটে কোন সমস্যা দেখলে আপনাকে গুগল প্রথম ওয়ার্নিং দিবে এবং আপনি তা পরবর্তী ৭২ ঘন্টার মধ্যে সমাধান করলে গুগল আপনার একাউন্ট অক্ষত অবস্থায় আপনার সম্মানী দিবে।

২) সাসপেনশন – আপনার সাইটে কোন স্প্যাম্প দেখা দিলে গুগল আপনাকে মেইল করে পরবর্তী ৩০ দিন সুযোগ দিবে এটা ফিক্স করার জন্য। আপনি এর মধ্যে সব ঠিক করলেই গুগল আপনাকে কোন ঝামেলা করবে না। অন্যথায় ঐযে আগেই বলেছি।

৩) ডিজ-আবেলিং – তারপরও যদি আপনি আপনার ব্লগ ঠিক না করে বসে থাকেন তাহলে গুগলে বসে না থাকলে আমাদের দোষ দেওয়ার তো কিছু নাই, নাকি? তারপরও গুগল আপনাকে ২ মাসের সুযোগ দিবে একই একাউন্ট পুনঃ উদ্ধারের জন্য। তাহলে কি সমস্যা আছে?

গুগলের এই সম্মানিত কর্মকর্তাকে আমি পার্সোনালী একটি প্রশ্ন করেছিলাম, “একই আইপি থেকে যদি আমি ২ টি অথবা অধিক এডসেন্স একাউন্ট লগইন করি তাহলে কি কোন সমস্যা হবে?”

উনি উত্তরে আমাকে বলেছিলেন আপনার একাধিক একাউন্ট লগইন করলে সমস্যা নাই। তবে সেটা অবশ্যই ভিন্ন নামের এবং ভিন্ন ভিন্ন ব্লগের জন্য হতে হবে।

মিঃ উদয় বারবার আমাদের সতর্ক করছিলেন কপিরাইট কন্টেন্ট এবং এডাল্ট কন্টেন্ট নিয়ে যেটা গুগল ২০১৫ থেকে কোন ছাড় দিচ্ছেন না।

আপনার ওয়েব পেজে এড দেখানো নিয়ে খুব কঠিন গুগল না তিনি জানান।

সবশেষে গুগল ওয়েব মাস্টার টিমের সাইদ মালিক স্লাইডের মাধ্যমে গুগল ইন্ডেক্স এবং এসইও বিষয় দেখান।

file (8)

সব শেষে আমার নিজের অভিজ্ঞতা থেকে বলবো, গুগল কোন প্রকার ঝামেলা কন্টেন্ট বা অসৎ কিছু কখনই পছন্দ করেন না। সেহেতু আজ থেকেই সতর্ক হয়ে যান।

আরও একটি টিম মিটিং আছে অফিসিয়াল শেষ করে আপনাদের সামনে চলে আসবো। আরও অনেক কিছু পাবেন আশা করি। সেই পর্যন্ত সুস্থ এবং সুন্দর থাকুন।

No Responses

Write a response