কীভাবে জন্মদিন উদযাপন করতেন হুমায়ুন আহমেদ?

humaun-news24আজ জনপ্রিয় কথা সাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের ৬৬ তম জন্মবার্ষিকী। ১৯৪৮ সালের ১৩ নভেম্বর বাংলা সাহিত্যের রাজপুত্র, কিংবদন্তি লেখক, জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদ পৃথিবীতে এসেছিলেন। আজ আমাদের মাঝে এই কালজয়ী লেখক জীবিত না থাকলেও তার সৃষ্ট শিল্পকর্ম বাঁচিয়ে রেখেছে।

অবসর পেলেই প্রকৃতির সান্নিধ্য পেতে ছুটে যেতেন নুহাশপল্লীতে। গিয়ে বসতেন তাঁর প্রিয় লিচুতলায়। সেই লিচুতলার ছায়ায় আজও গাছপালা-লতাপাতা চুঁইয়ে ঝরে পড়ে শিশিরকণা। পাখি গান গায়, ফুল ফোটে। কার্তিকের এই হিমে প্রিয় মানুষটিকে বুঝি স্বাগত জানায় গাছগাছালি, মাটির সোঁদা গন্ধ। কিন্তু মানুষটি নেই। সবাইকে ছেড়ে তিনি চলে গেছেন না-ফেরার দেশে। তবে জীবিত অবস্থায় এই তারকা লেখক কীভাবে কাটাতেন এই বিশেষ দিনটি? চলুন জেনে নেই।

জন্মদিনের আনুষ্ঠানিকতা তেমন পছন্দ ছিল না হুমায়ূন আহমেদের। তবু রাত ঠিক ১২টা ১ মিনিটে প্রিয়জনদের নিয়ে কাটতেন জন্মদিনের কেক। সকাল হলে ভক্তরা ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানাত প্রিয় লেখককে। থাকত দিনব্যাপী নানা আয়োজন।

উল্লেখ্য, সুদূর নিউ ইয়র্কে ২০১২ সালের ১৯ জুলাই বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ১১টায় চিকিৎসাধীন অবস্থায় শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন জনপ্রিয় এই কথাসাহিত্যিক। আকাশচুম্বী জনপ্রিয় এ লেখকের মৃত্যুতে পুরো দেশে শোকের ছায়া নেমে আসে।

সোর্সঃ ইন্টারনেট

No Responses

Write a response